সর্বশেষ

  মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটিতে আত্মপ্রকাশ করলো ‘হাত বাড়াও’   ছাতকে সাজাপ্রাপ্ত আসামী গ্রেফতার   মাদক ব্যবসায় জড়িত থাকার অভিযোগে ছাতকে ভাই-বোনসহ আটক ৩   ছাতকে দু’পক্ষের সংঘর্ষ, আহত ১৫   বিশ্বভারতীতে শেখ হাসিনার জন্য প্রস্তুত উপহারের ডালি   সুধীজনদের মিলনমেলায় সিলেট জেলা প্রেসক্লাবের ইফতার মাহফিল সম্পন্ন   শাবিতে কর্মচারীকে বেধড়ক পিটুনী   বাহুবলে বিদ্যুৎ স্পৃষ্টে কৃষকের মৃত্যু   বিদ্রোহী কমিটি গঠন নিয়ে সিলেট জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের বিবৃতি   মিসবাহ সিরাজকে শুভেচ্ছা জানালেন নবগঠিত সদর উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের নেতৃবৃন্দ   জমির উদ্দিন ভুলাই মেম্বারের মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে দোয়া ও ইফতার মাহফিল   বিশ্বনাথের দিঘলীতে স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কেন্দ্রের নির্মাণ কাজ শুরু   রোহিঙ্গা শিশুদের সঙ্গে গল্প-খুনসুটিতে প্রিয়াংকা চোপড়া   ওসমানীতে ২ কোটি টাকার বিদেশি মুদ্রাসহ আটক ১   রাজনগরে ভাইয়ের হামলায় আহত ভাইয়ের মৃত্যু   বনানীতে সমাহিত করা হবে তাজিন আহমেদকে   প্রকৌশলী আব্দুল কাদিরকে সংবর্ধনা   ফের সন্ত্রাসী সংগঠনের আখ্যা পেল বিএনপি   কুলাউড়ায় অগ্নিকাণ্ডে প্রায় ২০ লক্ষ টাকার ক্ষয়ক্ষতি   ‘ঈদের আগে জকিগঞ্জ-সিলেট সড়কের সংস্কার কাজ শেষ করতে হবে’

সিয়াম সাধনার মাস : ২২ রমজান

প্রকাশিত : ২০১৭-০৬-১৮ ১৪:২৫:৫৪

মীর্জা সোহেল : রবিবার, ১৮ জুন ২০১৭ ॥ রমজানের শেষ দশকের তৃতীয় দিন আজ। এ দশকের গুরুত্বপূর্ণ আমল সদকাতুল ফিতর। ইসলামী শরিয়তের পরিভাষায়, রোজাদাররা রোজাকে পরিশুদ্ধ করার জন্য রোজার শেষাংশে এবং ঈদের আগে যে দান করে থাকেন সেটাই সদকাতুল ফিতর। আমাদের দেশে ফিতরা কথাটির ব্যাপক প্রচলন হলেও কোরআন-হাদিসে এটাকে সদকাতুল ফিতর, জাকাতুল ফিতর বা জাকাতে রমজান নামে অভিহিত করা হয়েছে। ফিতরা আদায়ের প্রধান সময় ঈদুল ফিতরের দিন সকালে, ঈদের জামাতে যাওয়ার আগে। তবে যাদের ফিতরা দেওয়া হয় তাদের সুবিধার কথা বিবেচনা করে রমজানের শেষ দশক শুরু হওয়ার পর থেকেই সাধারণত ফিতরা আদায় করা হয়।

জাকাতের মতোই ফিতরা ইসলামের একটি আর্থিক ইবাদত। জাকাতের সঙ্গে ফিতরার পার্থক্য হলো, নিসাব বা সাড়ে সাত তোলা স্বর্ণ ও সাড়ে বায়ান্ন তোলা রূপার মালিক থাকা অবস্থায় এক বছর অতিবাহিত হলে জাকাত ফরজ হয়; কিন্তু ফিতরার ক্ষেত্রে এ ধরনের কোনো শর্ত নেই। ঈদের দিন সকালে যদি কেউ ওই পরিমাণ সম্পদের মালিক হয় তার ওপরও ফিতরা দেওয়া ওয়াজিব। খেজুর, পনির, যব, কিশমিশ, গমথ এ পাঁচ ধরনের খাদ্যের যে কোনোটির নির্দিষ্ট পরিমাণের মূল্য নির্ধারণ করে ফিতরা আদায় করা যায়। ফিতরাদাতা তার সামর্থ্য অনুযায়ী এ বিষয়টি নির্ধারণ করবেন। আমাদের দেশে সাধারণত সর্বনিম্নহারে ফিতরা নির্ধারণ করা হয়। যেমন এবার সর্বনিম্ন ফিতরা নির্ধারিত হয়েছে ৫৩ টাকা। মূলত এটা নিম্নমধ্যবিত্ত শ্রেণীর দিকে লক্ষ করে করা হয়ে থাকে। অধিক স্বচ্ছল ও বিত্তবান শ্রেণির জন্য সর্বোচ্চ হারে ফিতরা আদায় করা উচিত। এবারের নির্ধারণ অনুযায়ী তা ১ হাজার ৩২০ টাকা।

ফিতরার অন্যতম তাৎপর্য হলো ঈদের আনন্দে গরিব-দুঃখী মানুষকে শরিক করা। দীর্ঘ এক মাস সিয়াম সাধনার পর মহাপুরস্কার বা আনন্দের দিন হিসেবে যে দিনটি নির্ধারণ করা হয়েছে সেই দিনের আনন্দ যেন সর্বজনীন হয়। হাদিসে ফিতরা দিয়ে এক দিনের জন্য হলেও গরিব মানুষের অসহায়ত্ব ও মুখাপেক্ষী হওয়ার মতো দুরবস্থা দূর করতে মুসলমানদের উৎসাহিত করা হয়েছে।

হাদিসের ভাষ্য অনুযায়ী, ফিতরার আরেকটি গূঢ় তাৎপর্য হলোথ রোজাদারের এক মাসের রোজায় মান ও পূর্ণতায় যেসব বিচ্যুতি ও ত্রুটি হয়েছে তার ক্ষতিপূরণ দেওয়া। কারণ আমরা যত সতর্কতার সঙ্গেই রোজা রাখি না কেন আমাদের রোজায় কিছু না কিছু অপূর্ণতা ও ত্রুটি থেকেই যায়। যথাযথভাবে রোজা পালন না করা এবং রমজানের পবিত্রতা নষ্ট করার অপরাধে আমরা সবাই কমবেশি দায়ী। এ ত্রুটি ও অপূর্ণতা দূর করার জন্য ফিতরার বিধান রাখা হয়েছে। এতে প্রথমত আমাদের রোজা ত্রুটিমুক্ত হয়ে যাবে, দ্বিতীয়ত গরিবের আর্থিক কিছু উপকার হবে।

মাহে রমজানের রোজাগুলো পরিশুদ্ধ করার উৎকৃষ্ট উপায় ফিতরা। ধনীদের সম্পদে আল্লাহতায়ালা গরিবের যেসব অধিকার রেখেছেন এর মধ্যে ফিতরা একটি। প্রত্যেক সামর্থ্যবান মুসলমানের ওপর ফিতরা ওয়াজিব। ঈদের জামাতে যাওয়ার আগেই ফিতরা পরিশোধ করে যেতে হবে।

উত্তরপূর্ব২৪ডটকম/এমএস/এসবি

সর্বশেষ খবর


সর্বাধিক পঠিত