সর্বশেষ

  বিয়ানীবাজার পৌরসভায় কাউন্সিলর পদে কে কতো ভোট পেয়ে নির্বাচিত হলেন   শাবিতে সাংবাদিক পেটানোর ঘটনায় সপ্তাহব্যাপী গণস্বাক্ষর কর্মসূচি সমাপ্ত   মাধবপুরে দুর্নীতি প্রতিরোধ বিষয়ক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত   ফেঞ্চুগঞ্জে কুশিয়ারা নদীতে ভাসছে লাশ   কুলাউড়ার চাতলাপুর চা বাগানে নারী শ্রমিকদের কর্মবিরতি অব্যাহত : যোগ দিলেন পুরুষ শ্রমিকরাও   কেন বাংলাদেশে আসছে না পাকিস্তান?   গণভবনে হাসিনার সাথে ডেভিড ক্যামেরনের সাক্ষাৎ   শনিবার সুনামগঞ্জ আসছেন ওয়ার্কার্স পার্টি ও যুব মৈত্রীর কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ   হিমালয়ে নিখোঁজ পবর্তারোহীকে ৪৭ দিন পর উদ্ধার   সিলেট মহানগর বিএনপির পূর্ণাঙ্গ কমিটিতে রয়েছেন যারা   মদনমোহন কলেজে ডিগ্রি (পাস) কোর্সে রিলিজস্লিপে ভর্তির শেষ তারিখ ৩০ এপ্রিল   চাপাইনবাবগঞ্জে জঙ্গিদের আত্মসমর্পণের জন্য শেষ আহ্বান   চলে গেলেন অভিনেতা বিনোদ খান্না   শ্রীমঙ্গলে র‌্যাবের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত   কানাইঘাট ডিগ্রি কলেজ জাতীয়করণে এলাকাবাসীর মধ্যে আনন্দের বন্যা   দক্ষিণ সুনামগঞ্জে শিক্ষা বিষয়ক গেøাবাল অ্যাকশন র‌্যালি শেষে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত   শায়েস্তাগঞ্জসহ ৬ পৌরসভার কর্মকর্তা-কর্মচারীদের একঘণ্টা কর্মবিরতি   ছাতকে ব্যবসায়ীদের নিয়ে কাস্টম্স বিভাগের কর্মশালা সম্পন্ন   মোল্লারগাঁও ইউপি ৩নং ওয়ার্ড তালামীযের মতবিনিময় সভা   আব্দুস সামাদ আজাদের ১২তম মৃত্যুবার্ষিকী আজ

দলীয়ভাবেই স্থানীয় নির্বাচন, সংসদে বিল পাস

প্রকাশিত : ২০১৫-১১-২২ ২০:৪০:৫৭

উত্তরপূর্ব ডেস্ক : রোববার, ২২ নভেম্বর ২০১৫ ॥ সিটি কর্পোরেশনের মেয়র এবং উপজেলা পরিষদ ও ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান পদে রাজনৈতিক দলের প্রার্থীদের নির্বাচনে বিধান যুক্ত করে সংসদে স্থানীয় সরকার সম্পর্কিত পৃথক তিনটি বিল পাস হয়েছে।

বিলগুলো হলো, স্থানীয় সরকার (সিটি কপোরেশন) সংশোধন আইন ২০১৫, স্থানীয় সরকার (ইউনিয়ন পরিষদ) সংশোধন আইন ২০১৫, স্থানীয় সরকার (উপজেলা পরিষদ) সংশোধন আইন ২০১৫।

রোববার রাতে সংসদে স্থানীয় সরকার পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী খন্দকার মোশাররফ হোসেন বিলগুলো পাসের সুপারিশ করলে সেগুলো সংসদীয় কমিটির সুপারিশ আকারে পাস হয়। তার আগে বিলগুলোর ওপর জনমত যাচাই ও বাছাই কমিটিতে প্রেরণ এবং কিছু সংশোধনী প্রস্তাব কণ্ঠভোটে নাকচ হয়ে যায়।
 
সংশোধিত আইনে সিটি করপোরেশনের মেয়র, উপজেলা চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে অংশ গ্রহনের জন্য কোন ব্যক্তিকে কোন রাজনৈতিক দল কর্তৃক মনোনিত বা স্বতন্ত্র প্রার্থী হতে হবে মর্মে বিধান করা হয়েছে। তবে ঐ রাজনৈতিক দলকেও নিবন্ধিত রাজনৈতিক দল হতে হবে।

তার আগে সিটি করপোরেশন, ইউনিয়ন পরিষদ, উপজেলা পরিষদ এ রাজনৈতিক দল কর্তৃক প্রার্থী মনোনয়ের বিধানের প্রস্তাব সম্বলিত সংশোধনী বিল গত ১১ নভেম্বর সংসদে উত্থাপিত  হয়। গত বুধবার  সংসদীয় কমিটি শুধু মেয়র ও চেয়ারম্যান পদে দলীয় মনোনয়নের বিধান রেখে বিলগুলো চূড়ান্ত করে সংসদে রিপোর্ট দেয়।
 
বিলের উদ্দেশ্য ও কারণ সম্বলিত বিবৃতিতে বলা হয়েছে, দীর্ঘদিন ধরে জনগণ ও জনপ্রতিনিধিদের পক্ষ হতে সরাসরি অংশগ্রহণে স্থানীয় সরকার নির্বাচন সম্পন্ন করার দাবি উত্থাপিত হয়ে আসছে। জনগণের গণতান্ত্রিক এই প্রত্যাশার প্রতি গুরুত্ব প্রদান করে রাজনৈতিক দলসমুহের সরাসরি অংশগ্রহণের মাধ্যমে স্থানীয় সরকার নির্বাচন অনুষ্ঠিত হলে দলীয়ভাবে মনোনীত প্রার্থীরা নির্বাচনে অংশ নেয়ার সুযোগ পাবেন। এতে প্রার্থীদের দায়বদ্ধতা সৃষ্টি হবে এবং যথাযথভাবে রাজনৈতিক অঙ্গিকার পালনের সুযোগ সৃষ্টি হবে।

উত্তরপূর্ব২৪ডটকম/ডেস্ক/এমওআর

এ বিভাগের আরো খবর


সর্বশেষ খবর


সর্বাধিক পঠিত