সর্বশেষ

  ভাস্কর্যটি সুপ্রিম কোর্টের বর্ধিত ভবনের সামনে পুনঃস্থাপন   ব্যক্তি উদ্যোগে কানাইঘাট পৌর সভার ভবানীগঞ্জ বাজার রাস্তার সংস্কারকাজ শুরু   মাধবপুরে একাধিক মামলার পলাতক আসামি গ্রেফতার   বিশ্বনাথে এলাকাবাসীর সাথে প্রশাসনের বৈঠক   জগন্নাথপুরে দু’পক্ষের সংঘর্ষে নারীসহ আহত ১৫   রমজানের পবিত্রতা রক্ষায় দক্ষিণ সুরমা কাঠ ক্যবসায়ী কল্যাণ সমিতির র‌্যালি   খাঁরপাড়া আরজাদ আলী জামে মসজিদের উদ্বোধন করলেন সিটি মেয়র   নুরুলের দাদীর শয্যাপাশে ফটো জার্নালিস্ট অ্যাসোসিয়েশন সিলেটের নেতৃবৃন্দ   ৬ষ্ঠ ঘূর্ণী প্রিমিয়ার ক্রিকেট টুর্নামেন্টের পুরস্কার বিতরণ   বিশ্বম্ভরপুরে বিএনপির আনন্দ মিছিল   জুড়ীতে যৌন নিপীড়নের অভিযোগ প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে   ভাস্কর্য সরানোর প্রতিবাদে মৌলভীবাজারে বিক্ষোভ সমাবেশ   বড়লেখায় কাবিটা ও কাবিখা’র আওতায় দরিদ্র ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানের মধ্যে সোলার প্যানেল বিতরণ   মোগলাবাজারে শাহ জকনের ত্রাণ বিতরণ   অংকন টেলেন্টপুলে জিপিএ-৫ পেয়েছে   মৌলভীবাজারে হলুদে সেজেছে প্রকৃতি, কদমের মৌ মৌ গন্ধ   দিরাইয়ে দুর্গত মানুষের পাশে প্রবাসী শফিকুল   দেশে উন্নয়নের জোয়ার বইছে : দক্ষিণ সুনামগঞ্জে এম.এ মান্নান   ‘বেসামরিক নাগরিকদের চিকিৎসাসেবায় বাংলাদেশ বাস্তবভিত্তিক পদ্ধতি গ্রহণ করছে’   দীর্ঘ ৮ বছর পর মৌলভীবাজার জেলা বিএনপির নতুন কমিটি: আনন্দ মিছিল

সপ্তাহে একদিন যৌনমিলন

প্রকাশিত : ২০১৫-১১-২০ ১৭:২৪:৪৪

উত্তরপূর্ব ডেস্ক : শুক্রবার, ২০ নভেম্বর ২০১৫ ॥ সুখী হওয়ার জন্য প্রতিদিন যৌনমিলন জরুরি নয়।

যদি মনে করেন প্রতিদিন যৌনমিলন দুজনকেই সুখি করবে তবে নতুন গবেষণার ফলাফল আপনার ধারণা বদলে দেবে।

গবেষকদের মধ্যে সপ্তাহে একবার যৌনমিলনই দম্পতির মধ্যে ভালোবাসা ধরে রাখার জন্য যথেষ্ট। 

যদিও ঘন ঘন যৌনমিলনের সঙ্গে সুখী হওয়ার সম্পর্ক রয়েছে। তবে গবেষকদের মতে, সপ্তাহে একবারের বেশি ‘নিয়মিত’ হওয়ার কোনো উল্লেখযোগ্য সুফল নেই।

প্রধান গবেষক, সামাজিক মনোবিজ্ঞানী এবং ইউনিভার্সিটি অফ টরোন্টো-মিসিসাগা পোস্টডক্টোরাল সহকর্মী এমি মুইজা বলেন, “আমাদের গবেষণা ইঙ্গিত করে যে সঙ্গীর সঙ্গে ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক বজায় রাখা জরুরি। তবে এজন্য প্রতিদিন যৌনমিলন জরুরি নয়।”

চার দশক ধরে সংগ্রহ করা ৩০ হাজার আমেরিকানের তথ্য নির্ভর এই গবেষণার ফলাফলে দেখা যায়, প্রতি সপ্তাহে গড়ে একবারের বেশি যৌনমিলনের সঙ্গে সুখীজীবনের সম্পর্ক নেই।

এরমধ্যে একটি গবেষণা, ২৫ হাজার আমেরিকান (১১ হাজার ২৮৫ জন পুরুষ, ১৪ হাজার ২২৫ জন নারী) নিয়ে ইউনিভার্সিটি অফ শিকাগোর যৌনমিলনের পরিমাণ ও সুখী দাম্পত্য জীবন নিয়ে করা জরিপ পর্যালোচনা করেন গবেষকরা।

দম্পতিদের ক্ষেত্রে, যৌনমিলনের পরিমাণ বাড়ার সঙ্গে সংসারে সুখ বেড়েছে। তবে তারা জানায় সপ্তাহে একাধিক যৌনমিলন শুরু করার পর এই প্রভাব দেখা যায়নি।

সাধারণভাবে মনে করা হয় পুরুষ বেশি যৌনতা চায় এবং বয়স্করা যৌনমিলনে লিপ্ত হন কম— এই বিষয়গুলো বিবেচনার করার পরও লিঙ্গ ও সম্পর্কের সময়কাল ভেদে গবেষণার ফলাফলে কোনো ভিন্নতা আসেনি।

মুইজা বলেন, “নারী-পুরুষ, তরুণ-বয়স্ক এবং কয়েক বছর বা কয়েক দশক ধরে বিবাহিত দম্পতি— সবার ক্ষেত্রেই আমাদের এই গবেষণায় সংগতিপূর্ণ।”

সুখের জন্য সম্ভবত অর্থের চেয়েও বেশি গুরুত্বপূর্ণ যৌনতা। এই সিদ্ধান্তে আসতে গবেষকরা দীর্ঘদিন ধরে সম্পর্কে জড়িয়ে থাকা ১৩৮ জন পুরুষ এবং ১৯৭ জন নারীকে নিয়ে একটি অনলাইন জরিপ করেন। ফলাফল আসে প্রথম গবেষণার অনুরূপ।

এইসব অংশগ্রহণকারীকে তাদের বাৎসরি আয় সম্পর্কেও জিজ্ঞেস করা হয়। দেখা গেছে, মাসে যারা একবার সঙ্গম করেন তাদের তুলনায় যারা সপ্তাহে একবার সঙ্গম করেন পাশাপাশি বছরে ১৫ হাজার ডলার থেকে ২৫ হাজার ডলারের আয়ের মানুষদের তুলনায় ৫০ হাজার থেকে ৭৫ হাজার ডলার আয়ের মানুষের সুখী হওয়ায় পার্থক্য রয়েছে।

মুইজা বলেন, “মানুষ অনেক সময় মনে করে বেশি অর্থ আর বেশি যৌনতা মানেই বেশি সুখ। তবে এই কথা একটি নির্দিষ্ট সীমা পর্যন্ত সত্য।”

সুখী হওয়ার জন্য সপ্তাহিক গড় হিসেব করে কম বা বেশি যৌনমিলনের জন্য এই গবেষণা ইঙ্গিত করছে না বরং বলছে দম্পতিদের উচিৎ তাদের যৌন চাহিদা পূরণ হচ্ছে কিনা নিজেদের মধ্যে আলোচনা করা।

 “সঙ্গীর সঙ্গে যৌনমিলনের উপর অতিরিক্ত চাপ না ফেলেই ঘনিষ্ঠতা বজার রাখা জরুরি।” উপদেশ দেন মুইজা।

তবে এই গবেষণা শুধু রোমান্টিক সম্পর্ক যাদের রয়েছে তাদের জন্য প্রযোজ্য। ‘সিঙ্গেল’ বা অবিবাহিতদের সুখী জীবনের সঙ্গে বার বার যৌনমিলনের কোনো সম্পর্ক নেই।

সোশাল সাইকোলজিকাল অ্যান্ড পার্সোনালিটি সাইন্স নামক জার্নালে এই গবেষণা প্রকাশিত হয়।

ছবি: রয়টার্স।

এ বিভাগের আরো খবর


সর্বশেষ খবর


সর্বাধিক পঠিত