সর্বশেষ

  সুনামগঞ্জসহ সারাদেশে বন্যায় ক্ষতিগ্রস্তদের লিজ বাতিল ও কর্মসংস্থানের দাবিতে মানববন্ধন   ফ্রেন্ডস পাওয়ার স্পোর্টিং ক্লাবের উদ্যোগে ত্রাণসামগ্রী বিতরণ   জটিল রোগে আক্রান্ত শিশু রিয়াজের চিকিৎসার জন্য অনুদান   অর্থ ও পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী এম.এ মান্নান ৩ দিনের সফরে সুনামগঞ্জে আসছেন আজ   জগন্নাথপুরে চালের বরাদ্দ দিগুণ করা হলেও বাড়েনি বিক্রয় কেন্দ্র   ২০ দিন ধরে সারী ও বড়গাং নদীর রয়েল্টি বঞ্চিত ইজারাদার   গোয়াইনঘাট স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স নিজেই রোগী   অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করতে সওজ’র নির্বাহী প্রকৌশলী বরাবর জাউয়ার ব্যবসায়ীর অভিযোগ   ওসমানী বিমানবন্দরে ৬০ লাখ টাকার সিগারেট আটক   যুক্তরাষ্ট্র যাত্রা উপলক্ষে সাংবাদিক তুহিন চৌধুরীকে জেলা প্রেসক্লাবের সংবর্ধনা   সিলেটে মৃদু ভূমিকম্প অনুভূত   শিবের বাজার আদর্শ ব্যবসায়ী সংস্থার ত্রি-বার্ষিক নির্বাচন শনিবার   দক্ষিণ সুরমায় বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে শিশুর মৃত্যু   মৌলভীবাজারের হাকালুকি হাওরে ২৬ কোটি ১০ লাখ টাকার ক্ষতি   কান্দিগাঁও ইউনিয়নের ২ নং ওয়ার্ডের ক্রিকেট টুর্নামেন্ট সম্পন্ন   তালামীযে ইসলামিয়া সিলেট পূর্ব জেলার কাউন্সিল সম্পন্ন   শ্রীমঙ্গল উপজেলা চেয়ারম্যান রনধীর দেব পূজা উদযাপন পরিষদের সহ-সভাপতি মনোনীত   রোববার শাল্লা আসছেন শেখ হাসিনা: স্বাগত জানাতে ব্যাপক প্রস্তুতি   শ্রীমঙ্গলে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে যাত্রীবাহী বাস খাদে : আহত ১৪   ভোগের নয়, আ’লীগের রাজনীতি ত্যাগের: বিশ্বনাথে সংবর্ধনা সভায় শফিক চৌধুরী

ট্রেন বিকল করে দিল পিঁপড়া!

প্রকাশিত : ২০১৫-১১-২২ ১৩:২৯:৩৯

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : রোববার, ২২ নভেম্বর ২০১৫ ॥ গত মঙ্গলবার মুম্বাইয়ের একটি লোকাল ট্রেন পথের মধ্যে হঠাৎ করে ব্রেক ফেল করে। ট্রেনের ব্রেক বক্স খুলে দেখা যায় সেখানে বাসা বেঁধেছে হাজার হাজার পিঁপড়া।  

পিঁপড়ারা দলবেঁধে বাস করে, মানুষের মত তাদেরও একটা পিঁপড়া কলোনি থাকে। এরা অত্যন্ত পরিশ্রমী কিন্তু ক্ষুদ্র প্রাণী। কিন্তু দেখা যাচ্ছে এই ক্ষুদ্র প্রাণীটিই শত শত যাত্রী নিয়ে একটি ট্রেনকে বিকল করে দিয়েছে।

বেলা ১ টার দিকে মুম্বাই শহরতলীর একটি লোকাল ট্রেন 'কল্যাণ' মাতুংগা স্টেশানের কাছাকাছি আসলে চালক একে দুবে যাত্রী তোলার উদ্দেশে ট্রেনের ব্রেক চাপেন। কিন্তু এতে ট্রেন না থামলে তিনি দ্রুত বিদ্যুৎ চালিত শক্তিশালী ব্রেক চাপেন। কিন্তু এই ব্রেকও কাজ করেনি। কোন উপায় না দেখে শেষ অবলম্বন হিসেবে তিনি ট্রেনের জরুরী ব্রেক চাপেন এবং তীব্র ঝাঁকি দিয়ে শেষ পর্যন্ত ট্রেনটি থামে।

এই ঘটনার পরে চালক দুবে ট্রেনের ব্রেক বিকল হওয়ার কথা কন্ট্রোলরুমে জানাতে বলেন গার্ডদেরকে। মাতুঙ্গা থেকে করাখানা পর্যন্ত বাকি পথ ট্রেনটিকে খুব ধীর গতিতে চালিয়ে নিয়ে যাওয়া হয়।

যাত্রীদেরকে নিরাপদে নামিয়ে দেয়ার পর ইঞ্জিনিয়াররা যখন ট্রেনটিকে আগাপাশতলা পরীক্ষা করেন তখন তারা আবিষ্কার করেন যে, ব্রেক বক্সের ভেতরে বাসা বেঁধেছে পিঁপড়ারা এবং তারা ব্রেকের তারগুলো কিভাবে যেন বিকল করে দিয়েছে।

ট্রেনে মুলত তিন ধরনের ব্রেকের ব্যাবস্থা থাকে। সাধারণ ব্রেক, বৈদ্যুতিক ব্রেক এবং জরুরী ব্রেক। সাধারণ ব্রেক এবং বৈদ্যুতিক ব্রেকের তার একই ব্রেক বক্সের ভিতর দিয়ে গিয়েছে। দেখা গেছে পিঁপড়ারা এই বক্সের তারগুলোর জায়গায় জায়গায় খেয়ে ফেলেছে। এতে করে চালক ব্রেক চাপলেও সেটা কাজ করেনি।

মজার ব্যপার হচ্ছে, ট্রেনটিকে গত মাসে রক্ষণাবেক্ষণ করা হয়েছিল মাতুঙ্গা কারখানায়। তখন কোনো খারাপ রিপোর্ট পাওয়া যায় নি। ভারতের কেন্দ্রীয় রেলওয়ের মুম্বাই অংশের চেয়ারম্যান ভিক্রাম সলাঙ্কি বলেছেন, এই ঘটনায় ট্রেনের রক্ষণাবেক্ষণ কর্মকাণ্ড নিয়ে মারাত্মক প্রশ্ন ওঠে। পিঁপড়া দ্বারা আক্রান্ত হওয়াটা অস্বাভাবিক হলেও পোকামাকড় নিয়ন্ত্রণও ট্রেনের স্বাভাবিক রক্ষণাবেক্ষণের একটা অংশ।

উত্তরপূর্ব২৪ডটকম/ডেস্ক/এসবি

এ বিভাগের আরো খবর


সর্বশেষ খবর


সর্বাধিক পঠিত