সর্বশেষ

  জাকির হোসেনের সহায়তায় ব্রেইন টিউমারে আক্রান্ত রুমা ভারতে : চলতি সপ্তাহে অপারেশন   ভাস্কর্য অপসারণ ও শিক্ষক গ্রেফতারের প্রতিবাদে নিউইয়র্কে বিক্ষোভ   ভয়াবহ বিস্ফোরণ সাভারের ‘জঙ্গি আস্তানায়’   আর্জেন্টিনার কোচ সাম্পাওলিই   সাভারে ‘জঙ্গি আস্তানা’, পৌঁছেছে বোমা নিষ্ক্রিয়কারী দল   ডাব দেবে গরমে সতেজ অনুভূতি   কুড়িয়ে পাওয়া নবজাতকের দায়িত্ব নিলেন ওসি   গর্বিত রুনা লায়লা   হুমকিতে হাকালুকি হাওর এলাকার শিক্ষার্থীদের শিক্ষাজীবন   বড়লেখায় চেয়ারম্যান কল্যাণ ট্রাস্টের উদ্যোগে কৃতি শিক্ষার্থী সংবর্ধনা   আবু সাঈদ হত্যাকারীদের গ্রেফতার ও ফাঁসির দাবিতে জাউয়ায় মানববন্ধন   আমাদের পরিচয় ঢাকা পড়ে গেছে বিদেশি পরিচয়ে : এম.এ মান্নান   ইসলামী ব্যাংকের সিলেট জোনের ব্যবসায় উন্নয়ন সম্মেলন অনুষ্ঠিত   সহায়তার হাতে মলিন মুখে খুশির ঝিলিক   সুতাংয়ের ভূয়া ডা. বেলালকে গ্রেফতারের দাবি   জকিগঞ্জে এসএসসি উত্তীর্ণদের সংবর্ধনা   জগন্নাথপুরে আইডিয়াল ভিলেজ ফোরামের আত্মপ্রকাশ ও ইফতার সামগ্রী বিতরণ   মৌলভীবাজারে বৃদ্ধের লাশ উদ্ধার   বিশ্বনাথে মসজিদে তালা : প্রতিবাদে মানববন্ধন   হাওরে ক্ষতিগ্রস্তদের পাশে চণ্ডিপুর অ্যাসোসিয়েশন ইউকে

জালিয়াতি করে পাগড়িওয়ালা শিখকে বানানো হলো ‘প্যারিস হামলাকারী’

প্রকাশিত : ২০১৫-১১-১৭ ২০:৫০:২০

উত্তরপূর্ব ডেস্ক : মঙ্গলবার, ১৭ নভেম্বর ২০১৫ ॥ প্যারিসে সন্ত্রাসী হামলাকারীদের একজন হিসেবে পত্রিকায় প্রকাশিত এক ব্যক্তির ছবি অনলাইনে ভাইরাল হয়ে যাওয়ার পর ধরা পড়ল, ওই ছবি বানানো হয়েছে জালিয়াতি করে। 

ভাইরাল হয়ে যাওয়া ছবিতে দেখা যায় আত্মঘাতী হামলাকারীদের মতো ভেস্ট পরে দাড়িওয়ালা এক ব্যক্তি দাঁড়িয়ে আছেন কোরআন হাতে।

স্পেনের খবরের কাগজ লা-রাজন ওই ছবি প্রকাশ করে তার ক্যাপশনে লিখেছে- ‘প্যারিসে হামলাকারীদের একজন’।

আর তাদের প্রতিবেদনে লেখা হয়, “হামলাকারীদের মধ্যে একজন সিরিয়ান শরণার্থীদের সঙ্গে গ্রিসে প্রবেশ করে। প্যারিসে হামলাকারী অজ্ঞাতনামা ওই সন্ত্রাসীদের বয়স ছিল ১৫ থেকে ১৮ এর মধ্যে। তারা তিনটি দলে ভাগ হয়ে হামলা চালায়।”

পরে জানা যায়, কানাডা প্রবাসী এক ভারতীয় শিখের ছবি ফটোশপে ফেলে গায়ে চড়িয়ে দেওয়া হয়েছে আত্মঘাতী হামলার ভেস্ট। তার হাতের কোরআনও এসেছে একই কায়দায়।

জালিয়াতির বিষয়টি ধরা পড়ায় লা-রাজন রোববার ক্ষমা চেয়েছে বলে এনডিটিভির এক প্রতিবেদনে জানানো হয়। 

এনডিটিভি লিখেছে, ছবির ওই ব্যক্তির নাম ভিরেন্দর জুব্বাল। কানাডায় তিনি কাজ করছেন ফ্রিল্যান্স সাংবাদিক হিসেবে।

জালিয়াতি করা ছবিটি অনলাইনে ছড়িয়ে পড়তে শুরু করলে নিজের টুইটার অ্যাকাউন্টে আসল ছবিটি পোস্ট করেন জুব্বাল।

ওই ছবিতে জুব্বালকে একটি আইপ্যাড হাতে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা যায়। ফটোশপে সম্পাদনা করে ওই আইপ্যাডের জায়গায় কোরআন শরিফ আর জুব্বালের গায়ে ভেস্ট বসিয়ে দেওয়া হয়েছিল।

অব্শ্য দুই ছবিতেই জুব্বালের মাথায় দেখা যায় পরিচিত সেই পাগড়ি, যা শিখরা ব্যবহার করে।

তিনি টুইটে লিখেছেন, গত শুক্রবার রাতে প্যারিস হামলায় ১২৯ জন নিহত এবং সাড়ে তিনশ আহতের ঘটনার সঙ্গে তার যে কোনো যোগাযোগ নেই, এর প্রমাণ দিতেই ওই ছবি পোস্ট করেছেন তিনি।    

“আমার বিশ্বাস, সবাই বুঝতে পারবে আমার সঙ্গে কী হয়েছে। ফটোশপ করা এক ছবির কারণে আমিও ভাইরাল হয়ে গেছি, যেখানে আমাকে সন্ত্রাসী বলা হয়েছে।”

কারা কোন উদ্দেশ্যে এই জালিয়াতি করেছেন, তা জানা যায়নি। তবে যুক্তরাজ্যের গার্ডিয়ান লিখেছে, ইন্টারনেটে ভিডিও গেইমিং কমিউনিটির এক বিতর্কের মধ্যে সমালোচনামূলক মন্তব্য করায় জুব্বালকে হেনস্থার শিকার হতে হয়েছে।

জুব্বাল টুইটে লিখেছেন, “আমি পাগড়িওয়ালা শিখ, থাকি কানাডায়। জীবনে কখনো প্যারিস যাইনি, অথচ মানুষ আমার সেলফি সম্পাদনা ও ফটোশপ করে এমন অবস্থায় নিয়ে গেছে যেন আমিই হামলার জন্য দায়ী।” 

উত্তরপূর্ব২৪ডটকম/ডেস্ক/টিআই-আর

এ বিভাগের আরো খবর


সর্বশেষ খবর


সর্বাধিক পঠিত