সর্বশেষ

  সিলেটে ‘দ্যা সামিট অফ মেলোডি’ কনসার্টে মঞ্চ মাতালো অরফিয়াস ও ব্যান্ড 'লালন'   ফিলিস্তিনে ইসরাইলী আগ্রাসনের প্রতিবাদে ঢাকা মহানগর তালামীযের বিক্ষোভ মিছিল   ধর্মপাশায় জেলা পরিষদ চেয়ারম্যানকে সংবর্ধনা   মাধবপুরে জাতীয় পার্টির শোডাউন   আল আকসার পবিত্রতা রক্ষায় বিশ্বের মুসলমানদের ঐক্যবদ্ধ হতে হবে: হুছামুদ্দীন চৌধুরী   জকিগঞ্জে এম. জাকির হুসেইন হিফজুল ক্বোরআন প্রতিযোগীতা বাস্তবায়ন কমিটির সভা   ছাতকে পৃথক অভিযানে ভারতীয় মদ, জিরাসহ ৪জন আটক   পাক প্রধানমন্ত্রীর পদ থেকে বরখাস্ত নওয়াজ শরিফ   ‘মরহুম মনফর আলী এন্ড মরহুম হালিমা বিবি ওয়েল ফেয়ার ট্রাস্ট ইউকে’র উদ্যোগে বিশ্বনাথে ফ্রি খৎনা অনুষ্ঠান   দক্ষিণ সুরমার গ্যাস বিস্ফোরণে অগ্নিদগ্ধ ১, ৩টি গাড়ি ভস্মীভূত   সিলেটে ‘অলিম্পিক ডে- ২০১৭’ উদযাপন উপলক্ষে র‍্যালি অনুষ্ঠিত   কমলগঞ্জে পল্লী উন্নয়ন কর্মকর্তাকে বিদায় সংবর্ধনা প্রদান   দেশে প্রতি মিনিটে ১৩৮৯ পিস ইয়াবা গ্রহণ করে তরুণ-তরুণীরা   অনেক আসামি পলাতক, কিছু করার নেই তদন্ত সংস্থার   গুলশান হামলার ‘অন্যতম পরিকল্পনাকারী’ রাশেদ গ্রেফতার   ‘সেরা বাঙালি’র পুরস্কার নিতে আজ কোলকাতা যাচ্ছেন মাশরাফি   ‘১৮ হাজার হাজির হজ অনিশ্চিত’ : ৯১ টি হজ্জ এজেন্সির সংবাদ সম্মেলন   রড ছাড়াই কলেজের ভবন নির্মাণের ঘটনায় তদন্ত শুরু   ‘নিরাপত্তার কারণে সম্মেলনের অনুমতি দেওয়া হয়নি ইউনূস সেন্টারকে’ : ‘অনিবার্য কারণবশত’ সামাজিক ব্যবসা সম্মেলন বাতিল   সভাপতি পার্থকে অব্যাহতি, শাবি ছাত্রলীগের নতুন ভারপ্রাপ্ত সভাপতি হলেন রুহুল আমিন

সাবধান! মানবজাতি ধ্বংস করতে আসছে ব্যাকটেরিয়ার গজব!

প্রকাশিত : ২০১৫-১১-২৪ ১৪:১৩:৫৭

স্বাস্থ্য ডেস্ক : মঙ্গলবার, ২৪ নভেম্বর ২০১৫ ॥ মানবজাতির সামনে এবার মূর্তিমান আতঙ্ক হিসেবে আবির্ভূত হতে যাচ্ছে ব্যাকটেরিয়া। একে বলা হচ্ছে, 'antibiotic apocalypse'। এই ব্যাকটেরিয়া এমনই ভয়ঙ্কর যে সামান্য পেপারকাটিং থেকে এটা ছড়িয়ে পড়তে পারে মানবদেহে। যার অবধারিত পরিণাম হবে মৃত্যু। এমনকি এক সময় গোটা মানবজাতির চিহ্ন পর্যন্ত মুছে যেতে পারে। কারণ এই ব্যাকটেরিয়া প্রচলিত অ্যান্টিবায়োটিকের বিরুদ্ধে এমনই প্রতিরোধ গড়ে তুলছে যে, কোনো ওষুধই অদূর ভবিষ্যতে প্রাণঘাতী এই ব্যাকটেরিয়াকে আর ধ্বংস করতে পারবে না। এ-কারণে সাধারণ ব্যাকটেরিয়া দিনে দিনে এক ‘সুপারবাগ’-এ পরিণত হয়ে যাবে। আর এই  ‘...superbug would easily wipeout humanity'—এই সাবধানবাণী উচ্চারণ করেছেন বিজ্ঞানীরা।

পেপারকাটিং শুধু নয়, এমনকি যে কোনো অস্ত্রোপচারকালে এই ব্যাকটেরিয়া ছড়িয়ে পড়তে পারে রোগীর দেহে। এমনকি প্রতিটি শিশুর জন্মই মৃত্যুর ‘ডাইস’ হয়ে আবির্ভূত হবে একদিন। এভাবে একজনের দেহ থেকে আরেকজনের দেহে এই সুপারবাগ ব্যাকটেরিয়া ছড়াতেই থাকবে। কিন্তু একে বাগ মানাতে মানবজাতি হিমশিম খাবে---যদি অচিরকালের মধ্যে এই সুপারবাগকে ধ্বস করার মতো উপযুক্ত ওষুধ বা অ্যান্টবায়োটিক উদ্ভাবন করা না যায়।  .

বিজ্ঞানীরা মহাশক্তিধর সুপারবাগ ব্যাকটেরিয়ার সম্ভাব্য এই অজেয় অবস্থানকে বর্ণনা করেছেন এভাবে: ‘...we are approaching a "doomsday scenario".। সোজা ভাষায়, মানবজাতির জন্য এ-এক কেয়ামত বা সাক্ষাৎ গজব।

অ্যান্টিবায়োটিক রিসার্চ, ইউকে-র প্রধান নির্বাহী প্রফেসর কলিন গারনার বলছেন, ব্যাকটেরিয়ার অ্যান্টিবায়োটিক ধ্বংস করার এই মহা-ক্ষমতাকে মানবজাতির জন্য ‘কেয়ামত’ বা ‘গজব’ ('apocalypse') বলাটাই হবে যুক্তিযুক্ত; কেননা জীবাণুর বিরুদ্ধে এখন প্রচলিত অ্যান্টিবায়োটিক আমাদের যে সুরক্ষা-সুবিধা দিয়ে থাকে সেই সুবিধা আমরা আর পাবো না।

কারণ প্রচলিত অ্যান্টিবায়োটিক, এমনকি সর্বশেষ যে অ্যান্টিবায়োটিক উদ্ভাবন করা হয়েছে তা-ও, ভবিষ্যতের সুপারবাগ ব্যাকটেরিয়াকে ধ্বংস করতে পারবে না।
তিনি মনে করিয়ে দেন প্রথম বিশ্বযুদ্ধে মারা যাওয়া সৈন্যদের এক তৃতীয়াংশের মৃত্যুর জন্য দায়ী ছিল ব্যাকটেরিয়া। পরে ১৯২৮ সালে আলেকজান্ডার ফ্লেমিং পেনিসিলিন আবিস্খার করে মানবজাতিকে রক্ষা করেন। আর এখন সুপারবাগ ব্যাকটেরিয়াকে কাবু করার মতো কার্যকর ওষুধ বের করা না গেলে মানবজাতির সামনে আগুয়ান মহাপ্রলয় বা গজব ঠেকানোর আশা ক্ষীণ।

উত্তরপূর্ব২৪ডটকম/ডেস্ক/বিএন/এসবি

এ বিভাগের আরো খবর


সর্বশেষ খবর


সর্বাধিক পঠিত