সর্বশেষ

  প্রখ্যাত আলেমে দ্বীন আল্লামা বরকতপুরী আর নেই   সিলেট বিভাগের প্রথম দুই শহীদের কবরে শ্রদ্ধাঞ্জলি   ৫নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের শ্রদ্ধাঞ্জলি   সিলেট মহানগর স্বেচ্ছাসেবক লীগের শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পণ   দিরাইয়ে যথাযোগ্য মর্যাদায় বিজয় দিবস উদযাপন   “দেশের উন্নয়নে আলেম-উলামাসহ সবাইকে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করে যেতে হবে”   আফসর খান রাত্রিকালিন মিনি ফুটবল টুর্নামেন্টের উদ্বোধন   বিজয় দিবসে সিলেট মহানগর যুবলীগের শ্রদ্ধাঞ্জলি   বিজয়ানন্দে রঙিন সিলেট: শ্রদ্ধাভরে বীর শহীদদের স্মরণ   শাবিতে ৭ম ব্যাচের পুনর্মিলনী ২২ ডিসেম্বর   চৌধুরী মইনুদ্দিনকে দেশে ফিরিয়ে নিয়ে ফাঁসি কার্যকরের দাবি   সহকারি শিক্ষক সমিতির সংবাদ সম্মেলন: বেতন স্কেল নির্ধারণের দাবি   শায়েস্তাগঞ্জে দুই ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনের প্রার্থীদের প্রচারণা তুঙ্গে   বঙ্গবন্ধু কন্যা ভাতের বদলে আলু খাওয়াবেন না : এমপি মানিক   বিশ্বম্ভরপুরের রাজাপাড়া স্মৃতিসৌধে পুষ্পস্তপক অর্পণ   জকিগঞ্জে শিক্ষার্থীর অসুস্থ বাবার চিকিৎসার খবর নিলেন হুইপ সেলিম   এসপি হিসেবে পদোন্নতি পেলেন সিলেটের সুনন্দা রায়   বিশ্বনাথ থেকে ৪ অস্ত্র ব্যবসায়ী গ্রেপ্তার   আজ মহান বিজয় দিবস   দণ্ডিত রাগীব আলীর বন্দনায় পিপি মিসবাহ!

দেখা মিলবে ১৪ গুণ বড় রক্তিম চাঁদের

প্রকাশিত : ২০১৫-০৯-২৬ ১৫:৩০:৩৬

ফিচার ডেস্ক : শনিবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৫ ॥ মহাকাশ সম্পর্কে আগ্রহীরা যেন এখন থেকেই আকাশের দিকে চোখ রাখছেন। অবশ্য কোনো ভিনগ্রহবাসীর যান বা নতুন কোনো নক্ষত্র দেখার আশায় এই আকাশ পানে তাকানো নয়। চলতি বছরে পঞ্চমবারের মতো হতে যাচ্ছে সুপারমুন বা রক্তিম চাঁদ, আর সেই রক্তিম চাঁদ দেখার আশাতেই ওই আকাশ পানে তাকিয়ে থাকা। মহাকাশ গবেষণা সংস্থা নাসার পক্ষ থেকে আগামীকাল ২৭ সেপ্টেম্বর রাতের রক্তিম চাঁদকে বিশেষ তাৎপর্যপূর্ণ বলা হচ্ছে। এই চাঁদের পিঠে সওয়ার হয়েই আসবে চলতি মাসের সর্বশেষ পূর্ণিমা।

রবিবার মধ্যরাতে স্বাভাবিক রাতগুলোর তুলনায় পৃথিবীর অনেকটাই কাছাকাছি চলে আসবে চাঁদ। ওই সময় চাঁদের সঙ্গে পৃথিবীর দূরত্ব হতে পারে আনুমানিক দুই লাখ ২১ হাজার ৭৫৪ মাইল। ঠিক ওই সময় পৃথিবী চাঁদ এবং সূর্যের মধ্যবর্তী স্থানে বিরাজ করবে। শুরুর দিকে চাঁদকে কিছুটা ধূসর থেকে শুরু হয়ে তামাটে বর্ণ ধারণ করলেও ক্রমশ রক্তিম বর্ণের দিকে যাবে। আবহাওয়াবিদদের মতে, রক্তিম চাঁদ পৃথিবীতে বিভিন্ন প্রাকৃতিক বিপর্যয় নিয়ে আসতে পারে। যদিও প্রকৃতিতে এখন পর্যন্ত সেরকম কোনো আলামত পাওয়া যায়নি।

চাঁদ পৃথিবীর কাছাকাছি অবস্থান করার কারণে চাঁদকে অন্যান্য দিনের তুলনায় ১৪গুন বেশি বড় এবং অন্তত ৩০ শতাংশ বেশি উজ্জ্বল দেখাবে। তবে এই দৃশ্য সবচেয়ে বেশি ভালোভাবে দেখা যাবে উত্তর আমেরিকা, বিশেষ করে পূর্ব উপকূলীয় অঞ্চল থেকে। তবে এশিয়া অঞ্চল থেকেও রক্তিম চাঁদ দেখা গেলেও অতটা উজ্জ্বল চাঁদের দেখা নাও মিলতে পারে। মহাকাশ বিজ্ঞানীদের পক্ষ থেকে উজ্জ্বল চাঁদ দেখার ক্ষেত্রে চশমা ব্যবহার করার কথা জানিয়েছেন।

এদিকে, এই ঐতিহাসিক ঘটনার সাক্ষী হতে ইতোমধ্যেই অনেক দেশের মহাকাশ বিষয়ক সংস্থাগুলো জনসাধারণের জন্য এই রক্তিম চাঁদ দেখার আয়োজন করছে। নিউইয়র্কের ইন্টারপিড জাদুঘর থেকে হাডসন নদীর ধার থেকে চাঁদ দেখার বন্দোবস্ত করা হয়েছে। নদীর ধারে রাখা থাকবে শক্তিশালী টেলিস্কোপ, যা দিয়ে চাঁদের শরীর স্পষ্ট দেখা যাবে। পার্শ্ববর্তী দেশ ভারতের দিল্লিতেও একই ব্যবস্থা করা হয়েছে।

উত্তরপূর্ব২৪ডটকম/ডেস্ক/এসবি

সর্বশেষ খবর


সর্বাধিক পঠিত