সর্বশেষ

  নব্য জেএমবি’র সমন্বয়ক জঙ্গি মুসা সিলেটের আতিয়া মহলে!   আতিয়া মহলের পাশের ভবন থেকে নারী ও শিশুসহ উদ্ধার ৬   শিববাড়িতে আবারও সকাল থেকে গুলি-বিস্ফোরণের শব্দ   মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটিতে স্বাধীনতা দিবস উদযাপন   দক্ষিণ সুনামগঞ্জে যথাযোগ্য মর্যাদায় মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস পালিত   বিবিআইএস’র স্বাধীনতা দিবস উদযাপন ও ক্রীড়া প্রতিযোগিতার পুরষ্কার বিতরণ   আতঙ্ক-উৎকণ্ঠা আর দিনভর পটাস-পটাস, ধিড়িম-ধাড়িম   রশিদিয়া দাখিল মাদরাসায় স্বাধীনতা দিবস উদযাপন   শাবিতে মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উদযাপন   আবাহনী ক্রীড়া চক্রের সভাপতিকে সংবর্ধনা   পশ্চিম সদর উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজে মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উদযাপন   শহরতলীর ‘দি সান মুন মেরিট হোম’র উদ্যোগে স্বাধীনতা দিবস উদযাপন   স্বাধীনতার পরাজিত শত্রুরা দেশকে নিয়ে এখনো গভীর ষড়যন্ত্রে লিপ্ত: শফিকুর রহমান চৌধুরী   শ্রীলঙ্কার ক্রিকেট টিম বাসে হামলায় জড়িত জঙ্গি নিহত   মাধবপুরে ব্যবসায়ীর মৃতদেহ উদ্ধার   স্বাধীনতা দিবসে মহানগর আওয়ামী লীগের পুষ্পস্তবক অর্পণ   আতিয়া মহলে ‘অপারেশন টোয়াইলাইট’: ২ জঙ্গি নিহত, অভিযান চলবে   মাধবপুরে নানা আয়োজনে স্বাধীনতা দিবস পালন   মহান স্বাধীনতা দিবসে কমলগঞ্জে ছাত্রলীগের পুস্পস্তবক অর্পন   মহান স্বাধীনতা দিবসে প্লাটুন টুয়েলভ এর শ্রদ্ধাঞ্জলী

কোটিপতির স্বপ্ন পূরণে দুই বন্ধুর কৃষি খামার?

প্রকাশিত : ২০১৫-০৯-১৩ ২৩:০৬:২১

নিজের চাষ করা লাউ হাতে অাব্দুল কাইয়ুম।

মো. মামুন চৌধুরী, হবিগঞ্জ : রোববার, ১৩ সেপ্টেম্বর ২০১৫ ॥ আব্দুল কাইয়ূম হবিগঞ্জ সদর উপজেলার কৃষ্ণরামপুর গ্রামের বাসিন্দা। তিনি হবিগঞ্জ বৃন্দাবন সরকারি কলেজে অনার্সে লেখাপড়া করছেন। আর একই উপজেলার মশাজান গ্রামের বাসিন্দা সৈয়দ আব্দুল কাদির রাজিব ব্যবসা করছেন। সম্পর্কে তারা দুজন বন্ধু। বন্ধুত্বের সুবাধে তারা ২০১২ সালে যৌথ পুঁজিতে কৃষ্ণরামপুর গ্রামে খামার স্থাপন করেন। বহুমুখী এ খামারে মাছ ও বারমাসি সবজি চাষ করে প্রতিবছর তাদের দুই লাখ লাভ হচ্ছে। এদের এ খামার দেখে আশপাশের গ্রামের যুবকরা বেকার না থেকে নিজ পায়ে দাঁড়ানোর চেষ্টা করছেন।

কৃষ্ণরামপুর পরিদর্শনকালে ধানের জমির ফাঁকে ফাঁকে দেখা গেছে ছোট ছোট পুকুর। এসব পুকুরে মাছ চাষ হচ্ছে। আর পানি শুকিয়ে গেলে চাষ হয় বোরো ধান। দুই বন্ধুর ন্যায় এসব পুকুরে বেকার অন্যান্য যুবকরাও মাছ চাষ করে স্বাবলম্বী হচ্ছেন। দুই বন্ধু বাড়ির আশপাশ কোন জমি পতিত রাখছেন। কিছু জমি পেলেই পেঁপে গাছ, শাক, সবজি গাছ রোপণ করছেন।
এসময় আলাপকালে জামাল নামে এক যুবক জানায়- ইট তৈরি করার জন্য জমি থেকে মাটি ক্রয় করেছে ব্রিকস ফিল্ড কর্তৃপক্ষ। এ ফাঁকে এসব জমিতে আমরা পুকুর করে মাছ চাষ করছি। আর পানি কমলে মাছ বিক্রি করে বোরো ধান চাষ করে থাকি।

পরে দুই বন্ধু মিলে তাদের স্বপ্নের খামার ঘুরে দেখান। এসময় অবলোকিত হয়, পুকুরের মাছ, জমিতে চাষ করা টমেটো, শিম, লাউ, কলা গাছ, শাক সবজি। এসব সবজি তারা স্থানীয় বাজারে বিক্রি করে আর্থিকভাবে স্বাবলম্বী হচ্ছেন।

আলাপকালে আব্দুল কাইয়ূম বলেন- একসময় বেকার ছিলাম। ভেবে পাচ্ছিলাম না, কি করে জীবনের চাকা পরিচালিত করবেন। পরিকল্পনা মাফিক ২০১২ সালে দুই বন্ধু মিলে (কাইয়ূমের) নিজ পতিত জমিতে খামার গড়ে তুলে এখন সফলতা এগিয়ে যাচ্ছেন। এখন নেই বেকারত্ব। এ খামারের আয়ে চলছে সংসার। চলছে লেখাপড়া। তিনি আশাবাদ করে বলেন- তাদের স্বপ্ন কোটিপতির। এ লক্ষ্যে তারা কাজ করছেন।

সৈয়দ আব্দুল কাদির রাজিব বলেন- ইচ্ছায় উপায় বের হয়। এর প্রমাণ তারা দুই বন্ধু। তারা অস্বাধ্যকে সাধণ করতে চেষ্টার ত্রুটি রাখছেন না। এ খামারকে আরো অনেক দূর এগিয়ে নিতে চান। তিনি কৃষি বিভাগের সহযোগীর কথা স্বীকার করে বলেন- তারা সার্বক্ষণিক তাদের খামারে পরামর্শ দিয়ে থাকেন। তারা দুই বন্ধু হবিগঞ্জ কৃষিবিভাগ ও যুবউন্নয়ন অধিদপ্তর থেকে বিভিন্ন প্রশিক্ষণ নিয়েছেন। যার ফলে বেকাররত্ব দূর করতে সহায়ক হয়েছে।

এ ব্যাপারে উপ-সহকারী কৃষি অফিসার সামছুন্নাহার বেগম বলেন- তারা দুই বন্ধু খামার গড়ে তুলে বেকারত্ব দূর করে অন্যান্য বেকার যুবকদের কর্মসংস্থানে অনুপ্রেরণা দিচ্ছেন।

তিনি বলেন- এ খামারের উন্নয়নে তারা নানাভাবে কাজ করছেন। বড় কথা হলো এ খামারে সবজি চাষে কোন বিষ প্রয়োগ হচ্ছে না। এখানে গাছের উর্বর শক্তি বৃদ্ধিতে কম্পোস্ট সার, গোবর ও পোকা দমনে ব্যবহার হচ্ছে সেক্স ফেরুম্যান ফাদ। এসব ব্যবহার করে তারা সফলতা পাচ্ছেন।

উত্তরপূর্ব২৪ডটকম/এমসিকে/এসবি

এ বিভাগের আরো খবর


সর্বশেষ খবর


সর্বাধিক পঠিত