সর্বশেষ

  সুনামগঞ্জসহ সারাদেশে বন্যায় ক্ষতিগ্রস্তদের লিজ বাতিল ও কর্মসংস্থানের দাবিতে মানববন্ধন   ফ্রেন্ডস পাওয়ার স্পোর্টিং ক্লাবের উদ্যোগে ত্রাণসামগ্রী বিতরণ   জটিল রোগে আক্রান্ত শিশু রিয়াজের চিকিৎসার জন্য অনুদান   অর্থ ও পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী এম.এ মান্নান ৩ দিনের সফরে সুনামগঞ্জে আসছেন আজ   জগন্নাথপুরে চালের বরাদ্দ দিগুণ করা হলেও বাড়েনি বিক্রয় কেন্দ্র   ২০ দিন ধরে সারী ও বড়গাং নদীর রয়েল্টি বঞ্চিত ইজারাদার   গোয়াইনঘাট স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স নিজেই রোগী   অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করতে সওজ’র নির্বাহী প্রকৌশলী বরাবর জাউয়ার ব্যবসায়ীর অভিযোগ   ওসমানী বিমানবন্দরে ৬০ লাখ টাকার সিগারেট আটক   যুক্তরাষ্ট্র যাত্রা উপলক্ষে সাংবাদিক তুহিন চৌধুরীকে জেলা প্রেসক্লাবের সংবর্ধনা   সিলেটে মৃদু ভূমিকম্প অনুভূত   শিবের বাজার আদর্শ ব্যবসায়ী সংস্থার ত্রি-বার্ষিক নির্বাচন শনিবার   দক্ষিণ সুরমায় বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে শিশুর মৃত্যু   মৌলভীবাজারের হাকালুকি হাওরে ২৬ কোটি ১০ লাখ টাকার ক্ষতি   কান্দিগাঁও ইউনিয়নের ২ নং ওয়ার্ডের ক্রিকেট টুর্নামেন্ট সম্পন্ন   তালামীযে ইসলামিয়া সিলেট পূর্ব জেলার কাউন্সিল সম্পন্ন   শ্রীমঙ্গল উপজেলা চেয়ারম্যান রনধীর দেব পূজা উদযাপন পরিষদের সহ-সভাপতি মনোনীত   রোববার শাল্লা আসছেন শেখ হাসিনা: স্বাগত জানাতে ব্যাপক প্রস্তুতি   শ্রীমঙ্গলে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে যাত্রীবাহী বাস খাদে : আহত ১৪   ভোগের নয়, আ’লীগের রাজনীতি ত্যাগের: বিশ্বনাথে সংবর্ধনা সভায় শফিক চৌধুরী

সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বেতন বেড়ে দ্বিগুণ

প্রকাশিত : ২০১৫-০৯-০৭ ২০:৫১:১০

উত্তরপূর্ব ডেস্ক : সোমবার, ০৭ সেপ্টেম্বর ২০১৫ ॥ বেতন ও চাকরি কমিশন ২০১৩, সশস্ত্রবাহিনী বেতন কমিটি ২০১৩- এ সংক্রান্ত সচিব কমিটির সুপারিশের আলোকে সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের জন্য নতুন বেতন কাঠামো ও ভাতা অনুমোদন করেছে মন্ত্রিসভা। নতুন এ কাঠামো অনুযায়ী ২০টি গ্রেডে সর্বনিম্ন বেতন ৮ হাজার ২শ এবং সর্বোচ্চ ৭৮ হাজার টাকা ‍সুপারিশ করেছে সচিব কমিটি। যা আগে ছিল সর্বনিম্ন ৪ হাজার ৯শ এবং সর্বোচ্চ ৪০ হাজার টাকা।

সোমবার সচিবালয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে মন্ত্রিসভার নিয়মিত সাপ্তাহিক বৈঠকে নতুন বেতন স্কেল ও ভাতা অনুমোদন করা হয়। পূর্ব ঘোষণা অনুযায়ী নতুন বেতন কাঠামো গত জুলাই থেকেই কার্যকর হবে।

মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ মোশাররাফ হোসাইন ভুইঞা জানান, নতুন এ বেতন কাঠামোর গেজেট জারি হতে আরো এক মাস সময় লাগবে। গেজেট জারি হলেই সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীরা নতুন বেতন কাঠামোয় বেতন পাবেন।

টাইম স্কেল
মন্ত্রিপরিষদ সচিব আরো জানান, নতুন বেতন কাঠামোয় কোনো সিলেকশন গ্রেড বা টাইম স্কেল থাকছে না। এ সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপন জারি হলেই সিলেকশন গ্রেড বিলুপ্ত হবে। তবে এ প্রজ্ঞাপনের আগেই যারা সিলেকশন গ্রেড বা টাইমস্কেল পেয়েছেন তাদের প্রাপ্ত গ্রেড বহাল থাকবে।

ইনক্রিমেন্ট
নতুন বেতন কাঠামোয় ওপরের দিকের গ্রেডগুলোর বেতন বৃদ্ধির হার কম তবে নিচের স্তরে বৃদ্ধির হার বেশি। এই নতুন বেতন কাঠামোয় নির্ধারিত ইনক্রিমেন্ট থাকছে না জানিয়ে মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, ‘নতুন বেতন কাঠামোয় বৃদ্ধির হার বলা হয়েছে ২০ নম্বর গ্রেড থেকে ৬ নম্বর গ্রেড পর্যন্ত ৫ শতাংশ , ৫ নম্বর গ্রেডে ৪ দশমিক ৫ শতাংশ, ৩ এবং ৪ নম্বর গ্রেডে ৪ শতাংশ, ২ নম্বর গ্রেডে ৩ দশমিক ৭৫ শতাংশ হারে বেতন বৃদ্ধি পাবে।’ এবং ১ নম্বর গ্রেডে কোনো ইনক্রিমেন্ট থাকবে না বলেও জানান তিনি।

এ প্রসঙ্গে সচিব আরো বলেন, ‘টাইম স্কেলে বেতন যে হারে বৃদ্ধি হতো, নতুন স্কেলে বেতন তার চেয়েও বেশি বাড়বে। টাইম স্কেল এবং সিলেকশন গ্রেড পদ্ধতিতে সবার বেতন বৃদ্ধি পেত না। কিন্তু নতুন কাঠামোয় সবার বেতনই বৃদ্ধি পাবে।’

নতুন ভাতা
নতুন বেতন কাঠামো অনুযায়ী এখন থেকে উৎসব ভাতা হিসেবে নববর্ষ ভাতাও পাবেন সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীরা। মূল বেতনের ২০ শতাংশ এ ভাতা দেয়া হবে। আগে সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীরা বছরে দুটো ধর্মীয় উৎসব ভাতা পেতেন।

বৃদ্ধি পেয়েছে অবসর ভাতাও। আগে পেনশন বা অবসর ভাতা দেয়া হত মূল বেতনের ৮০ শতাংশ। যা এখন বৃদ্ধি হয়ে ৯০ শতাংশ করা হয়েছে। এছাড়া কর্মচারী-কর্মকর্তারা যে বিশেষ ভাতা পেতেন, তাও নতুন কাঠামোয় বৃদ্ধি পাবে। তবে তা নির্ধারিত থাকবে।

নতুন বেতন স্কেল কার্যকর করতে এ বছরই ১৫ হাজার ৯শ ৪ কোটি ২৪ লাখ টাকা অতিরিক্ত খরচ হবে। এ বছর শুধু বর্ধিত মূল বেতন দেয়া হবে। আগামী বছর অর্থ্যাৎ ২০১৬ জুলাই থেকে বেতন এবং ভাতা উভয়ই মিলিয়ে এখরচ দাঁড়াবে অতিরিক্ত ২৩ হাজার ৮২৮ কোটি ৫৭ লাখ টাকায়।

কোন গ্রেডে কত বেতন
গ্রেড ১- ৭৮ হাজার (নির্ধারিত), গ্রেড ২- ৬৬ হাজার, গ্রেড ৩- ৫৬ হাজার ৫শ, গ্রেড ৪- ৫০ হাজার, গ্রেড ৫- ৪৩ হাজার, গ্রেড ৬- ৩৫ হাজার ৫শ, গ্রেড ৭- ২৯ হাজার, গ্রেড ৮- ২৩ হাজার, গ্রেড ৯- ২২ হাজার, গ্রেড ১০- ১৬ হাজার, গ্রেড ১১- ১২ হাজার ৫শ, গ্রেড ১২- ১১ হাজার ৩শ, গ্রেড ১৩- ১১ হাজার, গ্রেড ১৪- ১০ হাজার ২শ, গ্রেড ১৫- ৯ হাজার ৭শ, গ্রেড ১৬- ৯ হাজার ৩শ, গ্রেড ১৭- ৯ হাজার, গ্রেড ১৮- ৮ হাজার ৫শ, গ্রেড ১৯- ৮ হাজার ৩শ, গ্রেড ২০- ৮ হাজার ২৫০ টাকা।

এছাড়াও নির্ধারিত বেতন থাকবে- সচিব-৭৮ হাজার, মেজর জেনারেল-৭৮ হাজার, সিনিয়র সচিব-৮২ হাজার, লে. জেনারেল - ৮২ হাজার, মুখ্য সচিব, মন্ত্রিপরিষদ সচিব-৮৬ হাজার এবং তিনবাহিনী প্রধান- ৮৬ হাজার।

পদমর্যাদা
নতুন কাঠামোয় গ্রেড চালু হওয়ায় আর থাকছে না প্রথম শ্রেণী, দ্বিতীয় শ্রেণী, তৃতীয় শ্রেণী প্রভৃতি পদগুলো। কর্মকর্তা-কর্মচারীরা এখন থেকে নতুন গ্রেডেই পরিচিতি পাবেন।

শিক্ষকদের বেতন
এমপিওভুক্ত স্কুল কলেজ শিক্ষকদের জন্যও এই বেতন কাঠামো নির্ধারিত। তবে এ বিষয়ে পর্যালোচনা করে বিস্তারিত সিদ্ধান্ত নেয়া হবে। পর্যালোচনা করে অর্থবিভাগ এ বিষয়ে পরিপত্র জারি করবে।

অপরদিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের বিষয়ে কোনো সিদ্ধান্ত নেয়া হয়নি। তবে তাদের আগের গ্রেডের ভিত্তিতে নতুন গ্রেডে যা বেতন হয় তা হিসেবেই বর্ধিত বেতন পাবেন।

এ বিষয়ে সচিব মোশাররাফ হোসাইন জানান, বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষকরা অনেকগুলো প্রস্তাব দিয়েছেন। এগুলো বেতন বৈষম্য নিরসন সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির কাছে যাবে। তারা পরে এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেবেন। মন্ত্রিপরিষদ শিক্ষকদের মর্যাদা রক্ষায় প্রতিশ্রুতিবদ্ধ বলেও জানান তিনি।

যেভাবে হলো
বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক গভর্নর ড. ফরাসউদ্দিনের নেতৃত্বে গঠিত পে-কমিশন তাদের প্রতিবেদনে টাইমস্কেল ও সিলেকশন গ্রেড তুলে দেয়ার সুপারিশ করলে তা নিয়ে কর্মকর্তা-কর্মচারীদের মধ্যে অসন্তোষ দানা বাঁধে। এর ফলে পে-স্কেল নিয়ে নতুন করে চিন্তাভাবনা করতে হয়। সচিব কমিটির সুপারিশসহ প্রতিবেদনটি নিয়ে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে কথা বলেন। তার নির্দেশনা অনুযায়ী টাইমস্কেল ও সিলেকশন গ্রেড সংস্কার করা হয়।

সচিব কমিটির সুপারিশ অর্থমন্ত্রীর কাছে হস্তান্তরের পর নিয়মানুযায়ী তা অর্থমন্ত্রণালয়ে যাচাই-বাছাই করা হয়। পরবর্তী সময়ে তা অর্থবিভাগের বাস্তবায়ন শাখায় পাঠানো হয়। এরই মধ্যে টাইমস্কেল ও সিলেকশন গ্রেড নিয়ে অসন্তোষের আশঙ্কা দেখা দেয়। বিশেষ করে বিশ্ববিদ্যালয় ও কলেজের শিক্ষকরা এর বিরোধিতা করে। ফলে এর আগে দু’বার অনুমোদনের জন্য প্রস্তুত করা হলেও শেষ পর্যন্ত তা মন্ত্রিসভায় ওঠেনি।

উত্তরপূর্ব২৪ডটকম/বিএম/এমওআর

এ বিভাগের আরো খবর


সর্বশেষ খবর


সর্বাধিক পঠিত