সর্বশেষ

  অতিরিক্ত পুলিশ সুপার পদোন্নতি পেলেন জ্যোতির্ময়   নগরী থেকে সাজাপ্রাপ্ত আসামি গ্রেফতার   জামিন পেলেন পৌর শ্রমিকলীগ নেতা তানিন   বিশ্বনাথে উপজেলা আওয়ামী লীগের মতবিনিময় সভা   সরকারের পাশাপাশি অসহায়দের পাশে বিত্তবানদের এগিয়ে আসা উচিত: নাদেল   সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় ফটোগ্রাফিক সোসাইটির নতুন কমিটি   নগরীতে পুলিশের অভিযানে ভারতীয় মদসহ গ্রেফতার ১   বাবনিয়া হাসিমপুর নিজামিয়া আলিম মাদ্রাসায় ওয়াজ মাহফিল সম্পন্ন   শুরুতেই সিলেটবাসীকে সুখবর দিলেন শাহজাহান কামাল   ‘শেখ হাসিনা’র নেতৃত্বে বাংলাদেশ ‘জঙ্গি-সন্ত্রাসমুক্ত’ রাষ্ট্র হয়েছে’   শহরতলীর তেমুখীতে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৩   বাগবাড়ীতে শিক্ষকের বাসায় দুর্ধর্ষ চুরি   শাবিতে তিনদিনব্যাপী ‘উৎসবে অনিরুদ্ধ’ শুরু   জেলা বিএনপি নেতা ফারুকের উদ্যোগে শীতবস্ত্র বিতরণ   গোপালপুরে মাঠে শীতকালীন বিষমুক্ত সবজির বাম্পার ফলন   মনিপুরি পাড়ায় ৫ দিনব্যাপি মহানামযজ্ঞ উৎসব শুরু   কমরেড অমল সেনের মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে আলোচনা সভা   আব্দুর রহমান বর্নী (রহঃ) ইছালে সওয়াব মাহফিল বাস্তবায়নে প্রস্তুতি সভা   ওসামানী স্মৃতি পরিষদ বাংলাদেশ’র শীতবস্ত্র বিতরণ   দি হলি চাইল্ড স্কুল এন্ড কলেজ’র নতুন ক্যাম্পাস উদ্বোধন

লেনদেন ১০ লাখ হলেই করতে হবে রিপোর্ট

প্রকাশিত : ২০১৫-০৫-২৭ ১৩:১৪:১০

উত্তরপূর্ব ডেস্ক: ২৭ মে, ২০১৫ ॥ সন্ত্রাসে অর্থায়ন ও মানিলন্ডারিং প্রতিরোধে নিবিড় পর্যবেক্ষণের সুবিধার্থে একটি নির্দিষ্ট হিসাবে এক দিনে এক বা একাধিক লেনদেনের মাধ্যমে জমা বা উত্তোলনে নজরদারি করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। নগদ লেনদেন এক দিনে ১০ লক্ষ টাকা বা তার বেশি হলেই বাংলাদেশ ফিনান্সিয়াল ইন্টেলিজেন্স ইউনিটে (বিএফআইইউ) রিপোর্ট দেয়ার নির্দেশ দেয়া হয়েছে।


মঙ্গলবার বাংলাদেশ ব্যাংকের বিএফআইইউ এর জারিকৃত এক সার্কুলারে দেশের সব আর্থিক প্রতিষ্ঠনকে এ নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। আগামী ১ জুন থেকে এ নির্দেশনা কার্যকর করা হবে এবং আগামী জুলাই মাস থেকেই রিপোর্ট প্রদান করতে হবে।

নির্দেশনায় বলা হয়েছে- অস্বাভাবিক লেনদেনের রিপোর্ট মাসিক ভিত্তিতে দিতে হবে। সংশ্লিষ্ট মাসে রিপোর্টযোগ্য নগদ লেনদেন সংগঠিত না হলে ‘নগদ লেনদেন রিপোর্টযোগ্য কোন লেনদেন নেই’ মর্মে প্রত্যয়ন পত্রের মাধ্যমে জানাতে হবে। দাখিলকৃত এসব রিপোর্ট সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানকে রিপোর্ট জমা দেয়ার পরবর্তী ৫ বছর পর্যন্ত সংরক্ষণ করতে হবে।তবে সরকারি হিসাব, সরকারি মালিকানাধীন প্রতিষ্ঠান, আধাসরকারি বা স্বায়ত্তশাসিত প্রতিষ্ঠানের হিসাবে নগদ জমার ক্ষেত্রে নগদ লেনদেন রিপোর্ট জমা দিতে না হলেও উত্তোলনের ক্ষেত্রে তা যথানিয়মে দাখিল করতে হবে।

নগদ লেনদেন রিপোর্টিং পূর্বে প্রবর্তিত সন্দেহজনক লেনদেন রিপোর্টি থেকে আলাদা বলে জানিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। এতে বলা হয়েছে, কোনো হিসেবে নগদ লেনদেন রিপোর্টযোগ্য সব লেনদেন সম্পাদিত হলেই তা সন্দেহজনক লেনদেন হিসেবে বিবেচিত হবে না। তবে কেন্দ্রীয় পরিপালন ইউনিট সব লেনদেন পর্যালোচনা করে দরকার হলে সন্দেহজনক লেনদেন রিপোর্ট হিসেবে পৃথক রিপোর্ট জমা দিতে হবে।

উত্তরপূর্ব২৪ডটকম/বিএম/এসবি

সর্বশেষ খবর


সর্বাধিক পঠিত